Home আন্তর্জাতিক পাকিস্তানে সহিংসতায় বহু হতাহত, সেনাবাহিনী তলব

পাকিস্তানে সহিংসতায় বহু হতাহত, সেনাবাহিনী তলব

SHARE

ধর্ম অবমাননার অভিযোগকে কেন্দ্র করে পাকিস্তানে সহিংসতা ছড়িয়ে পড়েছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষে পুলিশসহ অন্তত ছয় জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় তিন শতাধিক আহত হয়েছেন।

ইসলামপন্থীদের বিক্ষোভে সহিংসতা ছড়িয়ে পড়ার পর পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে গতকাল শনিবার সেনাবাহিনী মোতায়েনের সিদ্ধান্ত নেয় দেশটির সরকার। তবে আজ রোববার সকাল পর্যন্ত রাজধানীর কোনো সড়কে সেনাবাহিনীর সদস্যদের টহল দিতে দেখা যায়নি।

রাজধানী ছাড়াও লাহোর, করাচি, গুজরানওয়ালা, ফয়সলাবাদসহ আরো কয়েকটি শহরে এখনো বিক্ষোভ হয়েছে।  এসব শহরেও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষ হয়েছে।

ডন, রয়টার্স ও বিবিসির  খবরে উল্লেখ করা হয়,  এক বিবৃতিতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ১১১ সেনা ব্রিগেডের পর্যাপ্তসংখ্যক সদস্য পরবর্তী ঘোষণা না দেওয়া পর্যন্ত রাজধানীতে মোতায়েনের জন্য বলা হয়েছে। পরিস্থিতি সহসা নিয়ন্ত্রণে না এলে ফল খারাপ হবে বলে বিশ্লেষকরা সতর্ক করেছেন।

আইনমন্ত্রী জাহিদ হামিদের বিরুদ্ধে ধর্ম অবমাননার অভিযোগ এনে গত ৬ নভেম্বর থেকে বিক্ষোভ করে আসছেন পাকিস্তানের কট্টর ইসলামপন্থী সংগঠন তেহরিক-ই-লাবাইকের কর্মীরা। তার অপসারণের দাবিতে তখন থেকেই তারা রাজধানীর ফাইজাবাদ মহাসড়কে অবস্থান নিয়েছে। এতে কার্যত অচল হয়ে পড়েছে রাজধানী।

স্বল্পপরিচিত ইসলামপন্থী এই সংগঠনের কর্মীদের বিক্ষোভ লাহোর, করাচি, গুজরানওয়ালা, ফয়সলাবাদসহ আরো কয়েকটি শহরেও চলছে, যেখানকার সংঘর্ষেও শতাধিক মানুষ আহত হয়েছেন।

পাকিস্তানের গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়, শনিবার সকালে বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করে দিতে রাবার বুলেট ও কাঁদানে গ্যাস ব্যবহার করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। সে সময় বিক্ষোভকারীরাও পাল্টা আক্রমণ চালায়। পুলিশকে লক্ষ্য করে তারা ইট, পাথর ছুড়তে থাকে।

গতকাল শনিবার রাজধানীর ফাইজাবাদ থেকে বিক্ষোভকারীদের সরাতে গেলে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। এতে অন্তত ছয় জন নিহত ও দুইশতাধিক মানুষ আহত হন। এ সময় আইনমন্ত্রীর বাড়ি ভাংচুর করে বিক্ষোভকারীরা। যদিও সে সময় মন্ত্রী বা তার পরিবারের কেউ বাড়িতে ছিলেন না। পুলিশের বেশ কয়েকটি গাড়িতেও আগুন দেওয়া হয়।

ইসলামাবাদ পুলিশ বিভাগের মুখপাত্র জানান, হতাহত ব্যক্তিদের পাকিস্তান ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্স নামের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহত ব্যক্তিদের মধ্যে ১৩৭ জনই নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য বলে জানিয়েছেন ওই হাসপাতালের একজন মুখপাত্র।

নির্বাচনে প্রার্থীদের নেওয়া শপথের একটি অংশে ‘মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)’ অংশটি বাদ পড়ার পর আইনমন্ত্রী জাহিদ হামিদের অপসারণ চেয়ে বিক্ষোভ শুরু করে ইসলামপন্থীরা। তাদের অভিযোগ, আহমদিয়া সম্প্রদায়ের জন্য সুবিধাজনক ওই শপথে পরিবর্তন আনা ব্লাসফেমির শামিল। যদিও এ ঘটনা একজন ক্লার্কের ভুলে হয়েছে জানিয়ে ক্ষমা প্রার্থনা করেছেন জাহিদ হামিদ।

সেনাবাহিনীর মুখপাত্র মেজর জেনারেল আসিফ গফুর এক টুইট বার্তায় জানান, প্রধানমন্ত্রী শহীদ খাকান আব্বাসীকে ফোন করে পাকিস্তানের সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া জাতীয় স্বার্থে পরিস্থিতি ‘শান্তিপূর্ণভাবে’ মোকাবিলা করার অনুরোধ করেছেন।

অবশ্য আদালতের রায়ে পানামা পেপারস কেলেঙ্কোরিতে ফেঁসে ইতোমধ্যে প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফকে হারিয়ে দলটি ধুঁকছে। মরার ওপর খাড়ার ঘা হয়ে এসেছে দুর্নীতির দায়ে অর্থমন্ত্রী ইসহাক দারকে বাধ্যতামূলক মেডিকেল ছুটিতে যাওয়া। পাকিস্তানের ৭০ বছরের ইতিহাসে কোনো নির্বাচিত সরকারই তার মেয়াদ পূর্ণ করতে পারেনি। যেমনটি সেনা প্রশাসনের সঙ্গে জড়িয়ে নওয়াজ শরীফও পারলেন না।